তজুমদ্দিনে প্রেমের ঘটনায় চাচা হাতে নির্যাতনের শিকার এক শিশু-কিশোর।

প্রকাশিত: ১২:১৪ পূর্বাহ্ণ, মে ২৪, ২০২১

স্টাফ রিপোর্টার।। ভোলার তজুমদ্দিনে দুই শিশু কিশোরের প্রেমের ঘটনায় নির্যাতনের শিকার হয়েছে ১৫ বছরের এক শিশু। উপজেলার শম্ভুপুর ইউনিয়নের ৯ নং ওয়ার্ডের কোড়ালমারা গ্রামে শুক্রবার দিবাগত রাতে এই ঘটনা ঘটে। ওই শিশুর পিতা হাফেজ সিদ্দিকুর রহমান জানান, নুরানি মাদ্রাসায় পড়ুয়া ছেলে মাকসুদ (১৫) হাফেজ নুর আলমের বাসায় অবস্থানরত ভায়রার মেয়ে (১৪)র সাথে গোপনে সম্পর্ক করে। শুক্রবার রাত ২ টার দিকে ওই মেয়ে সাথে দেখা করতে তাদের বাড়ীতে যায়। আমার চাচাত ভাই হাফেজ নুর আলম মাকসুদ কে বাড়ীতে পেয়ে হাত পা বেঁধে মারপিট করে।
হাফেজ নুর আলম জানান, রাতে দুইজনকে একসাথে ঘরের বাহিরে পুকুরপাড়ে ঘাটলার উপর পেয়ে ভাতিজাসহ দুজনকে চড় থাপ্পড় মারি। তবে রাতে যাতে পালিয়ে যেতে না পাড়ে এজন্য তার হাত বেঁধে রাখার কথা স্বীকার করেন। স্থানীয় এক ইউপি সদস্য জানান, উভয় পক্ষের মধ্যে ঘটনাটি মিমাংসা করার চেস্টা চলছে।
ওসি তদন্ত এনায়েত হোসেন জানান, কোন পক্ষই অভিযোগ দেয়নি। লিখিত অভিযোগ পেলে তদন্ত সাপেক্ষে ব্যবস্থা নেয়া হবে।