মাদারীপুর শিবচরে গৃহবধুর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার, পালাতক স্বামী আটক

প্রকাশিত: ১১:২৫ পূর্বাহ্ণ, মে ৩, ২০২১

মীর এম ইমরান( মাদারীপুর) বিশেষ প্রতিবেদকঃ

মাদারীপুরের শিবচরে এক গৃহবধুর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। শনিবার (১ মে) সন্ধ্যায় উপজেলার কুতুবপুর উনিয়নের তাহের ফকিরের কান্দি গ্রামের নান্নু জমাদ্দারের ঘর থেকে রেশমা আক্তার (১৯)নামের এক গৃহবধুকে উদ্ধার করা হয়।

নিহত রেশমা আক্তার উপজেলার মাদবরচর ইউনিয়নের খাড়াকান্দি গ্রামের দাদন শেখের মেয়ে। এঘটনায় নিহতের বাবা দাদন শেখ বাদি হয়ে গতকাল রাতে ৩ জনের বিরুদ্ধে মামলা করেছে। মামলার প্রেক্ষিতে নিহতের স্বামী নান্নু জমাদ্দারকে রাতেই আটক করে পুলিশ।
পারিবারিক ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়,গত নয় মাস আগে রেশমা আক্তারের একই উপজেলার কুতুবপুর ইউনিয়নে তাহের ফরিরের কান্দি গ্রামের ধলু জমাদ্দারের ছেলে নান্নু জমাদ্দারে পারিবারিক ভাবে ইসলমিক শরীয়ত মোতাবেক বিয়ে হয়।

বিয়ে পর থেকেই স্বামীর বাড়ির লোকদের সাথে পারিবারি বিষয়ে দন্ধ চলছিলো।এবিষয়টি রেশমা তাঁর পরিবারকে অবগত করলে শনিবার বিকালে রেশমা আক্তারের মা ও ছোট ভাই স্বামীর বাড়ী থেকে তাঁকে আনতে গেলে। রেশমার স্বামী অকথ্য ভাষায় গালাগালি করে। রেশমার মা ও ভাই কে বাড়ি থেকে তাড়িয়ে দেয়। পরে সন্ধ্যায় সময় রেশমার অসুস্থ হয়ে গেছে। এই সংবাদে রেশমার ছোট ভাইকে মনকির শেখ(১৪) বোন রেশমা শুশুর বাড়ী আসে। এসে দেখে বোন জামাই নান্নু জমাদ্দারের থাকার ঘরের বাঁশের আড়ার সাথে গলার উড়না দিয়ে ফাঁস লাগানো।

পরে পুলিশ কে খবর দিলে পুলিশ গিয়ে ঝুলন্ত অবস্থায় রেশমার লাশ উদ্ধার করে।
শিবচর থানার ওসি মোঃ মিরাজ হোসেন বলেন, রাতে এক গৃহবধুর লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। ময়না তদন্তের জন্য লাশটি মাদারীপুরের সদর হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছি। রিপোর্ট পেলে জানতে পারবো এটা পরিকল্পিত হত্যা নাকি আত্মহত্যা। তবে এঘটনায় নিহতের পিতা একটি মামলা দায়ের করেন,এ মামলার আসামি নান্নু জমদ্দার কে রাতেই আটক করা হয়েছে।‘