জনসেবা আমার ধর্ম, সেবার মাঝেই বেঁচে থাকতে চাই

প্রকাশিত: ৪:১৭ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ২৮, ২০২০

সাইদুল ইসলাম, রাজাপুর: যারা মানব সেবাকে আপন করে নিয়েছে তারা সকল প্রকার সংকটময় পরিস্থিতিতে মানুষের পাশে থাকে। তাদের কাছে মানুষের সেবা করার জন্য দিন আর রাত নেই। যে কোনো মুহুর্তেই তার তাদের সেবার হাত বাড়িয়ে দেয় মানবকল্যানে। ঝালকাঠির রাজাপুরে এমন মানব সেবকদের মধ্য রয়েছেন বিউটি সিকদার নামের এক নারী। তিনি মানবসেবাকে তার ধর্ম হিসেবে মেনে নিয়েছেন। তিনি রাজাপুর উপজেলা আওয়ামীলীগ’র সদস্য, শুক্তাগড় ইউনিয়নের মহিলা আওয়ামীলীগ’র সভাপতি ও শ্রীমন্তকাঠি এম.এল. বালিকা মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটিতে পর পর তিনবার নির্বাচিত হয়ে সুনামের সাথে সভাপতির দ্বায়িত্ব পালন করে আসছেন। জানা যায়, তিনি দীর্ঘদিন ধরে শিক্ষার্থীদের স্কুলে ভর্তি, ফরম পুরনে আর্থিক সহায়তা এবং শিক্ষার্থীদের মাঝে শিক্ষা উপকরণ বিতরন করে তাদের সহযোগিতা করে আসছেন। করোনা মহামারির সময়ে শুক্তাগড় ইউনিয়নের খেটে খাওয়া ও কর্মহীন হয়ে পড়া মানুষের মাঝে তিনি তার সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দিয়ে মানুষের মনে জায়গা করে নিয়েছেন। বিউটি সিকদার শুক্তাগড় ইউনিয়নের বামনকাঠি এলাকার মৃত শহিদুল ইসলামের (শহিদুল্লাহ) মেয়ে এবং একই ইউনিয়নের সাকরাইল গ্রামের মৃত. আউয়াল সিকদারের ছেলে ইতালি প্রবাসী মো: উজ্জল সিকদারের স্ত্রী। বিউটি সিকদার শিক্ষক পরিবারের সন্তান। তার বাবা এবং শশুর একই প্রতিষ্ঠানের শিক্ষক ছিলেন বলে জানাগেছে। বিশিষ্ট সমাজ সেবিকা বিউটি সিকদারকে আসন্ন ইউপি নির্বাচনে উপজেলার ২নং শুক্তাগড় ইউনিয়নের চেয়ারম্যান হিসেবে দেখতে চায় এলাকাবাসী। রাজাপুর উপজেলার ইউপি নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে এই প্রথম বার নারী প্রার্থী হিসেবে তিনি রয়েছেন ব্যাপক আলোচনায়।
বিউটি সিকদার বলেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের আদর্শকে লালন করে তার দেখানো পথে চলে মানুষের সেবা করে আসছি। মানবসেবা আমার ধর্ম। আমি আমার শরীরের শেষ রক্তবিন্দু থাকা পর্যন্ত মানুষের সেবা করে যাবো। ২নং শুক্তাগড় ইউনিয়নের জনগণ চাইলে আমি আসন্ন ইউপি নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে নির্বাচন করবো।