বরিশাল টুংগিবাড়িয়ায় বিট পুলিশিং কার্যালয়ের শুভ উদ্ভোধন করেনঃ বিএমপি কমিশনার

প্রকাশিত: ১২:২৫ পূর্বাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ২, ২০২০

পারভেজ,বরিশাল প্রতিনিধিঃ 

বরিশাল মেট্রোপলিটন পুলিশ (বিএমপি) কমিশনার মো. শাহাবুদ্দিন খান বলেছেন, তৃনমূল পর্যায়ে পুলিশের সেবা পৌঁছে দেয়ার জন্য বিট পুলিশিং কার্যক্রম শুরু হয়েছে। বিট পুলিশিং কার্যক্রম পুলিশকে জনগনের সাথে আরও বেশী সম্পৃক্ত করবে।

মঙ্গলবার ০১ সেপ্টম্বর বেলা ১২ টায় বরিশাল বন্দর থানার ৯ নম্বর টুঙ্গিবাড়িয়া ইউনিয়ন পরিষদে বিট পুলিশিং কার্যালয় উদ্ধোধনকালে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন তিনি।

বিএমপি কমিশনার বলেন, বিট পুলিশিংয়ের মূল লক্ষ্য হচ্ছে পুলিশ কর্মকর্তারা সেবা নিয়ে তৃনমূল পর্যায়ে মানুষের কাছে যাবেন। ওয়ার্ড এবং শহরের মহল্লাগুলোকে বিভিন্ন বিটে বিভক্ত করে একজন উপ- পরিদর্শককে (এসআই) এর দায়িত্ব দেয়া হচ্ছে। দায়িত্বপ্রাপ্ত পুলিশ কর্মকর্তারা স্ব-স্ব এলাকার আইন-শৃঙ্খলা সহ সার্বিক বিষয়ে খোঁজ রাখবেন ও প্রাথমিক ব্যবস্থা নেবেন। এর মাধ্যমে সমাজ থেকে মাদক, ইভটিজিং, চুরি, ডাকাতি সহ সকল প্রকার অপরাধমূলক কাজ কমে আসবে এবং মানুষ শান্তিতে বসবাস করতে পারবে। এতে পুলিশ ও জনগনের মধ্যে সেতুবন্ধন তৈরী হবে।

 

সুস্থ্যভাবে বেঁচে থাকতে সবাইকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার পরামর্শ দেন বিএমপি কমিশনার। বিশেষ করে সবাইকে মাস্ক ব্যবহার নিশ্চিত করার তাগিদ দেন তিনি।

 

 

 

বিএমপি’র উপ-কমিশনার (দক্ষিন) মো. মোক্তার হোসেনের সভাপতিত্বে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন অতিরিক্ত কমিশনার প্রলম চিসিম, উপ-পুলিশ কমিশনার (ক্রাইম এন্ড অপারেশন) জুলফিকার আলী হায়দার ও অতিরিক্ত উপ-কমিশনার আকরমুল হাসান।

 

সহকারি কমিশনার (বন্দর) মো. শাহেদ আহমেদ চৌধুরীর সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে সহকারি পুলিশ কমিশনার আব্দুল হালিম, বন্দর থানার ওসি আনোয়ার হোসেন, কোতয়ালী মডেল থানার ওসি মো. নুরুল ইসলাম, সদর উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান মাহবুবুর রহমান মধু ও টুঙ্গিবাড়ীয়া ইউনিয়নের চেয়ারম্যান বাহাউদ্দিন প্রমুখ।

বরিশাল মেট্রোপলিটনের ৪টি থানা এলাকায় ২ শ’ বিট (এলাকা) রয়েছে। এরমধ্যে বন্দর থানায় বিট রয়েছে ৩৬টি। প্রাথমিক পর্যায়ে একটি কার্যালয় উদ্ধোধন করে কয়েকটি বিটের কার্যক্রম পরিচালনার সিদ্ধান্ত হয়। এই কার্যক্রম সফল হলে পরবর্তীতে এলাকা ভিত্তিক কার্যালয় স্থাপন করবে মেট্রোপলিটন পুলিশ।